Ticker

6/recent/ticker-posts

ফেসবুক অ্যাকাউন্ট কনভার্ট করে ফেসবুক পেজ তৈরি

আজকের দিনে ফেসবুকের নাম শোনেনি এমন মানুষ খুজে পাওয়া মুসকিল। এই ফেসবুক এর মাধ্যমেই আমরা আশে পাশের, দুর দূরান্তের মানুষের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে থাকি প্রতিনিয়ত।

আবার এই ফেসবুক এর মাধ্যমেই নিজেকে সারাবিশ্বের কাছে তুলে ধরি খুবসহজে। এজন্য মাঝে মধ্যে নিজের একটি পেজ থাকা টা খুব প্রয়োজনীয় মনে করি।

জেনে অবাক হবেন ফেসবুক আপনাকে আপনার প্রোফাইল কনভার্ট করে পেজ বানানোর সুবিদা দিয়ে থাকে।

ফেসবুক অ্যাকাউন্ট কনভার্ট করে লাভ কী?

লাভ অনেক আছে! অ্যাকাউন্ট কনভার্ট করে পেজ বানালে, অ্যাকাউন্টে যেসব ফলোয়ার আছে তারা সব পেজ এর ফলোয়ার হয়ে যাবে।
আর অ্যাকাউন্টে যারা ফ্রেন্ড হিসেবে ছিল,  তারা সব পেজের লাইকার হয়ে যাবে।

এতে করে খুব সহজে লাইক, ফলোয়ার পাওয়া যায়। যানেন ই তো একটি নতুন পেজে লাইক পাওয়া কেমন কষ্টের ব্যাপার।

কিভাবে করতে হয়?

স্টেপ ১: এটি করতে হলে একটি কম্পিউটার লাগবে। তবে মোবাইলেও করা যায়। মোবাইল দিয়ে করতে চাইলে ক্রোম ব্রাউজার ব্যবহার করতে পারেন।

স্টেপ ২: মোবাইল ব্যবহারকারী রা ক্রোম ব্রাউজার ওপেন করে উপর নিচে তিন টি ফোটা ওয়ালা বাটন টিতে ক্লিক করে  Request Desktop চালু করে দিন।

স্টেপ ৩: ডেক্সটপ মোড চালু করবার পরে www.facebook.com লিখে এন্টান করুন। দেখবেন ডেক্সটপ এর ফেসবুক হোম পেজ ওপেন হয়েছে। লগিন পেজ আসলে আগে লগিন করে নিন।

স্টেপ ৪: এবার এই লিংক কপি করুন।
https://www.facebook.com/pages/create/migrate
এবং ব্রাউজার এর যে ট্যাবটিতে ডেক্সটপ মোড চালু করেছিলেন সেটাতে লিংক টি পেস্ট করে এন্টার করুন। আপনি চাইলে অন্য ট্যাবেও করতে পারেন। সেক্ষেত্রে পুনরায় ডেক্সটপ মোড চালু করতে হবে হয়তো।

স্টেপ ৫: আবারো ফেসবুকের একটি ডেস্কটপ পেজ ওপেন হবে। এই পেজ থেকেই অ্যাকাউন্ট কে কনভার্ট করে পেজ বানাতে হবে।  লক্ষ্য করুন: আপনার সামনে যদি মোবাইল পেজ ওপেন হয় তবে আপনি সফল নাও হতে পারেন। এক্ষেত্রে আবার আগের স্টেপ ফলো করুন। নিচের স্ক্রিনশটে যেমন দেখানো হচ্ছে এমন পেজ ওপেন হতে হবে।

স্টেপ ৬: এবার Get Started বাটনে ক্লিক করুন।

স্টেপ ৭: আপনার কনভার্ট করা পেজ টি কোন ক্যাটেগরির হবে সেটা এখান থেকে নির্বাচন করতে হবে। কাঙ্ক্ষিত ক্যাটেগরি খুজে না পেলে সার্চ করতে পারেন।


স্টেপ ৮: এবার আপনি দেখতে পাবেন কারা কারা আপনার পেজের লাইকার হবে। আপনি চাইলে কাউকে আনসিলেক্ট করতে পারেন। আবার সকলকে সিলেক্ট করতে পারেন।

স্টেপ ৯: এবার ফটো বা ভিডিও সিলেক্ট করতে বলে। এটাতেও নেক্সট ক্লিক করুন।

স্টেপ ১০: এবার প্রিভিউ দেখানো হবে। এখান থেকে দেখে নিন সব ঠিকঠাক আছে কি না। ভালো করে দেখুন (এতএত সিলেক্টেড)  লেখাটি দেখতে পাবেন। এখানে যতজন দেখতে পাবেন, তত জনই আপনার পেজের লাইকার হবে। তাই এই স্টেপে সব কিছু দেখে নিবেন।

এবার ইংরাজি Create Page বাটনে ক্লিক করে কনভার্ট চালু করুন। সাধারণত ১৫ থেকে ৩০ মিনিটেই কনভার্ট সম্পন্ন হয়।


কিছু বিষয় না জানলে নয়। 

১৫ - ১৬ সালে যখন বাংলায় এ সম্পর্কে ব্লগ পড়তাম তখন অনেক আর্টিকেলই দেখতে পেতাম যে কনভার্ট করলে নাকি আইডি উইরা যায়। যা একেবারেই সত্য নয়।
কনভার্ট করার পরে আপনার আইডি এবং পেজ দুটাই থাকবে।

আশা করি বুঝতে পেরেছেন। উপকৃত হলে আবার আমার ব্লগ পড়তে আসবেন। আপনার, আমার সুস্থতা কামনা করে এখানেই বিদায় নিচ্ছি। আল্লাহ হাফেজ। 

Post a Comment

0 Comments